প্রশ্নঃ কোন গুচ্ছটি তৎসম উপসর্গ নয়?
ক. নি, অব, দুর, অপি
খ. অপ, নির, সু, আ
গ. আব, স, না, কার
ঘ. উৎ, বি, অভি, পরা
উত্তরঃ গ

প্রশ্নঃ শব্দ বিভক্তির মতো বাক্যে ব্যবহৃত হয়ে বাক্যের অর্থ প্রকাশে সাহায্য করে কোনটি ?
ক. প্রকৃতি
খ. অনুসর্গ
গ. প্রত্যয়
ঘ. বিভক্তি
উত্তরঃ খ

প্রশ্নঃ ‘পরি’ উপসর্গ যোগে গঠিত ‘পরিসীমা’ শব্দের অর্থ নিচের কোনটি সঠিক নয়?
ক. চতুর্দিক
খ. গণ্ডিবদ্ধ
গ. সম্যকরূপে
ঘ. শেষ
উত্তরঃ ঘ

প্রশ্নঃ উপসর্গ দ্বারা নিষ্পন্ন শব্দকে কি বলে?
ক. উপসর্গ নিষ্পন্ন শব্দ
খ. সমস্তপদ
গ. অনুসর্গ নিষ্পন্ন শব্দ
ঘ. প্রাতিপাদিক
উত্তরঃ ক

প্রশ্নঃ গর, দর, হর, প্রভৃতি কোন ধরনের উপসর্গ ?
ক. সংস্কৃত উপসর্গ
খ. খাঁটি বাংলা উপসর্গ
গ. তৎসম উপসর্গ
ঘ. বিদেশী উপসর্গ
উত্তরঃ ঘ

প্রশ্নঃ ‘লা’ কোন উপসর্গের উদাহরণ ?
ক. হিন্দি
খ. ইংরেজি
গ. আরবি
ঘ. ফারসি
উত্তরঃ গ
প্রশ্নঃ ‘সুনজর’ শব্দটির ‘সু’ কোন প্রকার উপসর্গ?
ক. পর্তুগীজ উপসর্গ
খ. আরবি উপসর্গ
গ. তৎসম উপসর্গ
ঘ. বাংলা উপসর্গ
উত্তরঃ ঘ

প্রশ্নঃ অনুসর্গ কি ?
ক. শব্দ – বিভক্তি
খ. উপসর্গ
গ. ক্রিয়া- বিভক্তি
ঘ. অব্যয়
উত্তরঃ ঘ

প্রশ্নঃ বাংলা উপসর্গ মোট কয়ভাগে বিভক্ত ?
ক. দু ভাগে
খ. পাঁচ ভাগে
গ. তিন ভাগে
ঘ. ছয় ভাগে
উত্তরঃ গ

প্রশ্নঃ কোন শব্দ গঠনে উপসর্গ ব্যবহৃত হয়েছে?
ক. পরাকাষ্ঠা
খ. অভিব্যক্তি
গ. পরিশ্রান্ত
ঘ. অনাবৃষ্টি
উত্তরঃ ঘ

প্রশ্নঃ নিচের কোনটি খাঁটি বাংলা উপসর্গের উদাহরণ ?
ক. প্রচলন
খ. অপসারণ
গ. কুকথা
ঘ. বেকার
উত্তরঃ গ

প্রশ্নঃ বিভুঁই, বিফল, বিপথ-এ শব্দগুলোতে নিচের কোন উপসর্গটির প্রয়োগ ঘটেছে?
ক. অ উপসর্গ
খ. বি উপসর্গ
গ. ব উপসর্গ
ঘ. বে উপসর্গ
উত্তরঃ খ

একই শব্দের বিভিন্নার্থে প্রয়োগ:

প্রশ্নঃ যত বড় মুখ নয় তত বড় কথা – এখানে মুখ বলতে কি বোঝাচ্ছে ?
ক. অনুভুতি
খ. গালি
গ. প্রত্যাশা
ঘ. শক্তি
উত্তরঃ ঘ

প্রশ্নঃ এ তোমার কি রকম আচরণ – এখানে ‘রকম’ কি অর্থে ব্যবহৃত হয়েছে ?
ক. মূর্তি
খ. রীতি
গ. সৌন্দর্য
ঘ. লজ্জা
উত্তরঃ খ

প্রশ্নঃ মাথা খাও – পত্র দিতে ভুল না – এখানে ‘মাথার’ অর্থ কি ?
ক. জ্ঞান
খ. অঙ্গ বিশেষ
গ. দিব্যি দেয়া
ঘ. আশকারা পাওয়া
উত্তরঃ গ

প্রশ্নঃ উচ্চৈঃস্বরে কোন শব্দ দ্বারা বুঝানো হয়েছে ?
ক. গাল দেয়া
খ. গলা তোলা
গ. চোখ ফোঁটা
ঘ. গলা ছেড়া
উত্তরঃ ঘ

প্রশ্নঃ কোন বাক্যে কাঁচা শব্দটি নগদ অর্থে ব্যবহৃত হয়েছে ?
ক. মানুষ কাঁচা মাংস খায় না
খ. সুজন অঙ্কে কাঁচা
গ. কাঁচা বয়সে এ কথা বুঝবে না
ঘ. যুদ্ধের বাজারে সে কাঁচা পয়সা রোজগার করেছে
উত্তরঃ ঘ

প্রশ্নঃ ডাক্তার বাবুর হাট যশ আছে – এখানে ‘হাত’ কোন অর্থে ব্যবহৃত হয়েছে ?
ক. নিপুণূতা
খ. অঙ্গীকার
গ. বশ করা
ঘ. সহায়ক
উত্তরঃ ক

প্রশ্নঃ কেমন করে রেঁধেছ, একেবারে কাঁচাই রয়েছে – কাঁচার অর্থ কি ?
ক. অসিদ্ধ
খ. অনিপুন
গ. অল্পজ্ঞান
ঘ. অপক্ক
উত্তরঃ ক

প্রশ্নঃ মাথা শব্দটি কি অর্থে ব্যবহৃত হয় ?
ক. শত্রুতা
খ. অবাক হওয়া
গ. আচার ব্যবহার
ঘ. অনুরোধ
উত্তরঃ ঘ

প্রশ্নঃ ‘উদ্দেশ্য সিদ্ধ হওয়া’ কোন শব্দ দ্বারা বুঝানো হয়েছে ?
ক. কাজে বের হওয়া
খ. কাজ হাসিল করা
গ. কাজে লাগা
ঘ. কাজে দেয়া
উত্তরঃ খ

প্রশ্নঃ কোন বাক্যে হাত শব্দটি সুখ্যাতি অর্থে ব্যবহৃত হয়েছে ?
ক. এ ব্যাপারে আমার হাত আছে
খ. চাকরটার হাতটান আছে
গ. পরের দুয়ারে হাত পাততে পারব না
ঘ. ডাক্তার সাহেবের বেশ হাত যশ আছে
উত্তরঃ ঘ
প্রশ্নঃ কোন বাক্যে কথা শব্দটি তুলনা অর্থে ব্যবহৃত হয়েছে ?
ক. অমিতের সাথে আমার কথা নেই
খ. লোকটির যেই কথা সেই কাজ
গ. আমার গ্রামে একটি স্কুল খোলার কথা আছে
ঘ. তুমি ধনীর ছেলে, তোমার সাথে কার কথা
উত্তরঃ ঘ

প্রশ্নঃ ‘পক্ষপাতী’ কোন শব্দ দ্বারা বুঝানো হয়েছে ?
ক. চোখে ধূলি দেয়া
খ. চোখের চামড়া
গ. চোখ ফোঁটা
ঘ. এক চোখা
উত্তরঃ ঘ

প্রশ্নঃ তালে তালে দোদুল, দোলে নাচের নেশারচুর’ এখানে ‘তাল’ কোন অর্থ প্রকাশ করেছে ?
ক. নৃত্যের একক
খ. ফল বিশেষ
গ. অাঘাত
ঘ. বাহুতে আঘাত
উত্তরঃ ক

প্রশ্নঃ এতো অল্প টাকায় মাস চলবে না – এই ‘চলা’ কোন অর্থ প্রকাশ করেছ ?
ক. সংকুলান হওয়া
খ. প্রচলিত হওয়া
গ. অবলম্বন করা
ঘ. সময় দেয়া
উত্তরঃ ক

প্রশ্নঃ ‘নদীটি উত্তর মুখে প্রবাহিত’ – এখানে মুখ কোন অর্থ প্রকাশ করেছে ?
ক. প্রত্যক্ষ বিশেষ
খ. মর্যাদা
গ. দিক
ঘ. তিরস্কার
উত্তরঃ গ

প্রশ্নঃ শিউলী যতই কাঁদুক তাতে আমার মনে আঁচর কাটবে না – ‘তাল’ কোন অর্থ প্রকাশ করেছে ?
ক. ছড়া আবৃতি করা
খ. অপমান করা
গ. লজ্জিত হওয়া
ঘ. রেখাপাত করা
উত্তরঃ ঘ

প্রশ্নঃ কোন বাক্যে শক্ত কথাটি কঠিন অর্থে ব্যবহৃত হয়েছে ?
ক. তিনি আমাকে শক্ত কথা শুনিয়ে দিলেন
খ. কাঠটি বেশ শক্ত
গ. তাকে শক্ত রোগে ধরেছে
ঘ. শক্ত হাতের কাজ, তাই এতো মজবুত
উত্তরঃ খ

প্রশ্নঃ ‘প্রতিবাদ করা’ কোন শব্দ দ্বারা বুঝানো হয়েছে ?
ক. কথা কাটা
খ. কাটা পড়া
গ. সময় কাটা
ঘ. মেঘ কাটা
উত্তরঃ ক

আরো পড়ুন: