প্রশ্নঃ ‘আমড়া কাঠের ঢেঁকি’ এর অর্থ কি?
ক. আমড়া
খ. বাজে কাঠ
গ. অকেজো
ঘ. বাজে ঢেঁকি
উত্তরঃ গ

প্রশ্নঃ ‘উত্তম মধ্যম’ বলতে কি বুঝায়?
ক. সম্মান
খ. মাঝামাঝি
গ. মারা
ঘ. ওপর-নিচে
উত্তরঃ গ

প্রশ্নঃ আকাশ ভেঙ্গে পড়া—
ক. হঠাৎ বিপদ হওয়া
খ. আশ্চর্য্য হওয়া
গ. মন্দ ভাগ্য
ঘ. কঠিন পরীক্ষা
উত্তরঃ ক

প্রশ্নঃ “অকালপক্ব”-এর ‘বাগধারা’ কোনটি?
ক. ইঁচড়ে পাকা
খ. গাছে পাকা
গ. মূলে পাকা
ঘ. গোড়ায় পাকা
উত্তরঃ ক

প্রশ্নঃ ‘বজ্র আঁটুনি ফস্কা গেঁরো।’-কথাটির অর্থ কি?
ক. বোকামি করা
খ. অসাবধানতা
গ. বেশি সচেতনতা
ঘ. কঠিন সতর্কতার ভেতরে অসতর্কতা
উত্তরঃ ঘ

প্রশ্নঃ “রাঘব বোয়াল” বাগধারার অর্থ-
ক. বড়লোক
খ. সমাজপতি
গ. চেয়ারম্যান
ঘ. অর্থলোভী
উত্তরঃ খ

প্রশ্নঃ ‘কানা ছেলের নাম পদ্মলোচন।’-এর অর্থ কোনটি?
ক. যার যে গুণ, সে গুণের কদর করা
খ. যার যে গুণই নাই, সে গুণের কথা বলা
গ. গুণহীনকে গুণ অর্জন করতে বলা
ঘ. অন্ধত্ব নিবারণে পদ্মফুল উপকারী
উত্তরঃ খ

প্রশ্নঃ দীর্ঘস্থায়ী দুঃখকে কোন বাগধারা দিয়ে প্রকাশ করা হয়?
ক. ভাসুর-ভাদ্রবৌ সম্পর্ক
খ. ঢেঁকির কচকচি
গ. মাছের মার পুত্র শোক
ঘ. রাবনের চিতা
উত্তরঃ ঘ

প্রশ্নঃ শব্দের ব্যবহার দুই প্রকার। যথা-
ক. আকাঙ্ক্ষা, আসত্তি
খ. বাচ্যার্থ, লক্ষ্যার্থ
গ. ক্রিয়া, কর্ম
ঘ. যোগ্যতা, অভিব্যক্তি
উত্তরঃ খ

প্রশ্নঃ বাগধারা যুগলদের মধ্যে কোন জোড়া সর্বাধিক সমার্থকবোধক?
ক. বুদ্ধির ঢেঁকি, গোবর গণেশ
খ. খয়ের খাঁ, ঢাকের কাঠি
গ. ঘোড়ার ডিম, কাঁঠালের আমসত্ব
ঘ. গদাইলস্করী চাল, গজেন্দ্র গমন
উত্তরঃ ক

প্রশ্নঃ ‘ইতর বিশেষ’ বাগধারাটির অর্থ-
ক. অভদ্র
খ. ভেদাভেদ
গ. ঝগড়াটে
ঘ. অপছন্দনীয়
উত্তরঃ খ

প্রশ্নঃ ‘হাততোলা’ বাক্যাংশের বিশিষ্ট অর্থ কি?
ক. নিজের হাত ওপরে তোলা
খ. অপরের হাত তুলে ধরা
গ. প্রহার করা
ঘ. আদর করা
উত্তরঃ গ

প্রশ্নঃ ‘আমড়া কাঠের ঢেঁকি-এ প্রবাদটির সাথে নিচের কোন প্রবাদটির মিল আছে?
ক. অকালকুষ্মাণ্ড
খ. অগ্নিশর্মা
গ. অল্প জলের মাছ
ঘ. ঊনপাঁজুরে
উত্তরঃ ক

প্রশ্নঃ ‘তাসের ঘর’-বাগধারাটির সার্থক প্রয়োগ হয়েছে কোন বাক্যে?
ক. তাসের ঘর মজার আসার
খ. তাসের ঘর খেলা করে
গ. এ দুনিয়ার তাসের ঘর, ধ্বংশ হবে দুদিন পর
ঘ. তাসের ঘর অবিনশ্বর
উত্তরঃ গ

প্রশ্নঃ ‘উপস্থিত সুযোগ ত্যাগ করা।’-এটি কোন প্রবাদের অর্থ?
ক. হাতের পাঁচ আঙ্গুল সমান নয়
খ. জোর যার মুল্লুক তার
গ. হাতের লক্ষী পায়ে ঠেলা
ঘ. বিনা মেঘে বজ্রপাত
উত্তরঃ গ

প্রশ্নঃ ‘পাপ কখনো গোপন থাকে না’ অর্থে প্রবাদ কোনটি?
ক. কড়িতে বাঘের দুধ মিলে
খ. অতি লোভে তাঁতী নষ্ট
গ. অভাবে স্বভাব নষ্ট
ঘ. ধর্মের ঢাক আপনি বাজে
উত্তরঃ ঘ

প্রশ্নঃ বাগধারা যুগলদের মধ্যে কোন জোড়া সর্বাধিক সমার্থবাচক?
ক. বক ধার্মিক, ভিজে বেড়াল
খ. বক ধার্মিক, বিড়াল তপস্বী
গ. রুই-কাতলা, কেউ কেটা
ঘ. অমাবস্যার চাঁদ, আকাশ কুসুম
উত্তরঃ খ

প্রশ্নঃ ‘চেনা বামুনের পৈতা লাগে না।’-প্রবাদের অর্থ হলো-
ক. স্বনামখ্যাত ব্যক্তির পরিচিতির প্রয়োজন হয় না
খ. চেনা বামুন পৈতা পরেন না
গ. পৈতা দিয়ে বামুনকে চেনা যায়
ঘ. পৈতা পরলেই বামুন হয় না
উত্তরঃ ক

প্রশ্নঃ ‘অন্ধ অনুকরণ’ নিচের কোনটির অর্থ?
ক. গড্ডলিকা প্রবাহ
খ. গদাই লস্করী চাল
গ. গায়ে ফু দিয়ে বেড়ানো
ঘ. নেই আকড়া
উত্তরঃ ক

প্রশ্নঃ ‘ওজন বুঝে চলা’ বাগধারার অর্থ-
ক. আত্মসম্মান রক্ষা করা
খ. পক্ষপাতদুষ্ট
গ. পৃষ্ঠপোষককে সমর্থন
ঘ. অন্যের অনুরকণ
উত্তরঃ ক

প্রশ্নঃ “কৃপণের কড়ি”- কোন বাগধারা দিয়ে বোঝানো হয়েছে?
ক. যক্ষের ধন
খ. মিছরির ছুরি
গ. মণিকাঞ্চন
ঘ. শাপে বর
উত্তরঃ ক

প্রশ্নঃ ‘হাতে স্বর্গ পাওয়া’ কি অর্থ বহন করে?
ক. ফল লাভ করা
খ. কাঙ্ক্ষিত বস্তু লাভ
গ. দুর্লভ কিছু পাওয়া
ঘ. অটল
উত্তরঃ গ

প্রশ্নঃ ‘রাবণের চিতা’ বাগধারাটির অর্থ কি?
ক. অনিষ্টে ইষ্ট লাভ
খ. চির অশান্তি
গ. অরাজক দেশ
ঘ. সামান্য কিছু নিয়ে ঝগড়া বাধানো
উত্তরঃ খ

প্রশ্নঃ বাংলা বাগধারায় ‘কাঠালের আমসত্ব’-এর অর্থ কি?
ক. বেমানান সজ্জা
খ. অসম্ভব ব্যাপার
গ. বাজে কাজ
ঘ. নাছোড়বান্দা
উত্তরঃ খ

প্রশ্নঃ নিচের বাগধারা যুগলের মধ্যে কোন জোড়া সর্বাধিক সমার্থকবাচক?
ক. অমাবস্যার চাঁদ, আকাশ কুসুম
খ. অহিনকুল সম্বন্ধ, আদায় কাচকলায়
গ. আকাশে তোলা, আষাঢ়ে গল্প
ঘ. অগ্নি পরীক্ষা, অদৃষ্টের পরিহাস
উত্তরঃ খ

প্রশ্নঃ ‘শত্রু লোকের পাল্লায় পড়া।’-বাক্যের পরিবর্তে কোন প্রবাদ বাক্য ব্যবহৃত হয়?
ক. ঠেলার নাম বাবাজী
খ. ঘুঘু দেখেছ ফাঁদ দেখনি
গ. খাল কেটে কুমির আনা
ঘ. বজ্র আাঁটুনি ফসকা গেঁরো
উত্তরঃ ক

প্রশ্নঃ সৌভাগ্যের বিষয় কথাটিকে কোন বাগধারা দিয়ে বুঝানো হয়েছে?
ক. কেউকাটা
খ. একাদশে বৃহস্পতি
গ. এলাহী কাণ্ড
ঘ. গোঁফ খেজুরে
উত্তরঃ খ

প্রশ্নঃ ‘আগড়ম বাগড়ম’ বাগধারার অর্থ—
ক. সুন্দর কথা
খ. প্রচুর কথা
গ. রাগের কথা
ঘ. অর্থহীন কথা
উত্তরঃ ঘ

প্রশ্নঃ কোন বাগধারাটি স্বাতন্ত্র্য অর্থ প্রকাশ করে?
ক. সাতেও না পাঁচেও না
খ. দা-কুমড়া
গ. সাপে-নেউলে
ঘ. আদায় কাঁচকলায়
উত্তরঃ ক

প্রশ্নঃ ‘মুখে বড় বড় কথা; কিন্তু কাজের বেলায় কিছুই না।’-এর প্রবাদ কোনটি?
ক. যত গর্জে তত বর্ষে না
খ. গাঁয়ে মানে না আপনি মোড়ল
গ. পরের ধনে পোদ্দারী
ঘ. কথায় খই ফোটে
উত্তরঃ ক

আরো পড়ুন: